Latest News

লাদাখ সীমান্তে ভারতীয় সেনাবাহিনীর টি-৯০ ট্যাঙ্ক ও বিএমপি সাঁজোয়া মোতায়েন What's New Life 🦠কোভিড পজিটিভ অগ্নিমিত্রা পাল, জানালেন ট্যুইট করে What's New Life দেশের দৈনিক কোভিড🦠 আপডেট ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ What's New Life ১ অক্টোবর থেকে রাজ্যে শর্তসাপেক্ষ খুলছে বিনোদন দুনিয়া What's New Life প্রয়াত প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী যশোবন্ত সিং What's New Life দ্বিতীয় ম্যাচে সানরাইজার্স হায়দরাবাদকে হারিয়ে প্রথম জয় কলকাতার What's New Life সাপ্তাহিক লগ্নফল – ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে ৩ অক্টোবর What's New Life ৬ দিনের রিমান্ডে ধর্মা প্রোডাকশনসের অন্যতম প্রযোজক ক্ষিতিজ প্রসাদ What's New Life মাদক গ্রহণের কথা অস্বীকার সারা-শ্রদ্ধার What's New Life মাদক-সংশ্লিষ্ট হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাটিংয়ের কথা স্বীকার দীপিকার What's New Life

🏏 আইপিএলের বিভিন্ন স্পনসরশিপ চুক্তি পর্যালোচনার জন্য বৈঠক আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের

ভারত-চিন সীমান্ত সংঘর্ষে কর্নেল-সহ ২০ জন ভারতীয় সেনার মৃত্যুতে এখন চিনা পণ্য বর্জনের ডাক দিয়েছে গোটা দেশই। দেশের বহু জায়গাতেই চিনা বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখিয়েছে জনতা । এই অবস্থায় নড়েচড়ে বসল আইপিএল গভর্নিং কাউন্সিল । সীমান্তে বীর জওয়ানদের আত্মবলিদানের কথা মাথায় রেখে সবকিছু ফের খতিয়ে দেখা হবে জানিয়েছে তারা। শুক্রবার রাতে নিজেদের ট্যুইটার হ্যান্ডেলে আইপিএলের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, সীমান্তে বীর জওয়ানদের অসম সাহসী লড়াইয়ের কথা মাথায় রেখে আইপিএল গর্ভনিং কাউন্সিল একটি বৈঠক ডাকছে যেখানে আইপিএলের বিভিন্ন স্পনসরশিপের বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে।  ‘ মূলত আইপিএলের টাইটেল স্পনসর প্রখ্যাত চিনা মোবাইল সংস্থা ভিভো। মূলত এই বিষয়টি নিয়েই খতিয়ে দেখা হবে সবদিক।

প্রধানমন্ত্রীর সর্বদলীয় বৈঠকে চিনের প্রতি অনমনীয় বার্তার ঠিক পরেই আইপিএল এই ট্যুইটটি করে। কিন্তু এর আগে পরিস্থিত এরকম ছিল না। চিনা স্মার্টফোন সংস্থাগুলির দিকে নজর সবচেয়ে বেশি। ভারতের স্মার্টফোনের বাজারে এখনও চিনের সংস্থাগুলিরই রমরমা। এমনকী, আইপিএলের টাইটেল স্পনসরও বেশ কয়েক বছর ধরে চিনা স্মার্টফোন প্রস্তুতকারক সংস্থা ভিভো। এই অবস্থায় ভিভোর বদলি হিসেবে অন্য কোনও সংস্থাকে বিসিসিআই ভাবছে কী না, এমন প্রশ্ন অনেকের মনেই ঘুরপাক খাচ্ছিল।

কিন্তু বোর্ডের পক্ষ থেকে শুক্রবার স্পষ্ট করা হয়েছিল যে আইপিএলের টাইটেল স্পনসর ভিভোই থাকছে। ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড মনে করছে যে, চিনের সংস্থা থেকে আসা অর্থ চাঙ্গা করবে ভারতীয় অর্থনীতিকেই। ২০২২ পর্যন্ত ভিভোর সঙ্গে চুক্তি রয়েছে বিসিসিআইয়ের । তাই তাড়াহুড়ো করে এখনই কোনও কিছু বদল বা ছেঁটে ফেলতে চাইছে না বিসিসিআই। সবদিক দেখেই তারপর সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।বোর্ডের কোষাধ্যক্ষ অরুণ ধুমল বলেছেন, “আবেগ দিয়ে ভাবলে অনেক সময়ই যুক্তিকে গুরুত্ব দেওয়া হয় না। আমাদের বুঝতে হবে যে, চিনের স্বার্থে চিনের সংস্থাকে সাহায্য করা আর ভারতের স্বার্থে চিনের অর্থনীতির সাহায্য নেওয়ার মধ্যে অনেক তফাত্‍ রয়েছে।”

আসলে ভিভোর সঙ্গে প্রতি বছরের চুক্তি ছিল বাত্‍সরিক ৪৪৪ কোটি টাকার। আর এই চুক্তি ২০২২ অবধি রয়েছিল। তবে এটা ছাড়াও আইপিএলে-র আলাদা আলাদা ফ্রাঞ্চাইজিদেরও নিজস্ব স্পনসর আছে। সব মিলিয়ে পরিস্থিতিটা এখন অনেকটাই আলাদা। গালওয়ানে চিনের আক্রমণ মোটেই ভালোভাবে নেয়নি দেশ। এই বার্তাটাই এই মুহূর্তে সব মহল থেকে দিতে চাইছে ভারত।

Facebook Comments

KOLKATA WEATHER
Thappad Shubh Mangal jyada Saavdhan Bhoot Love Aaj Kal Porshu Love Aaj Kal (लव आज कल 2) Professor Shonku Bombshell The Grudge অসুর রবিবার Sanjhbati
What's New Life